“নেপালও দলে নেবে না…” বাবর আজমকে নিয়ে চাঞ্চল্যকর মন্তব্য পাকিস্তানি লেজেন্ডের !

সম্প্রতি টি-২০ বিশ্বকাপে পাকিস্তান ক্রিকেট দল একেবারে জঘন্য পারফরম্যান্স করেছে। ভারত এবং আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্রের কাছে হারার পর গ্রুপ পর্ব থেকেই বিদায় নিয়েছে মেন ইন গ্রিন। এরপর পাকিস্তান ক্রিকেট দলের পারফরম্যান্স নিয়ে ইতিমধ্যেই যথেষ্ট সমালোচনার ঝড় বয়ে গিয়েছে। দলের অধিনায়ক বাবর আজমকে পড়তে হয়েছে তোপের মুখে। পাকিস্তানেরই একজন প্রাক্তন ক্রিকেটার কার্যত ধুয়ে দিয়েছেন বাবরকে। কে সেই প্রাক্তন ক্রিকেটার? তিনি আর কেউ নন, পাকিস্তান ক্রিকেট দলের প্রাক্তন অধিনায়ক শোয়েব মালিক। তিনি বাবর আজমকে নিয়ে একটি বিতর্কিত মন্তব্য করলেন।

বলা হয়, বাবর আজম নাকি পাকিস্তান ক্রিকেট দলের সেরা ব্যাটার। ইতিমধ্যে শোয়েব মালিক স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন, আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলার কোনও যোগ্যতাই নেই বাবর আজমের। এমনকী, নেপাল ক্রিকেট দলও তাঁকে নেবে না। বাবর আজমের সমালোচনা করে শোয়েব মালিক বললেন, ‘আমাদের সেরা ক্রিকেটার হল বাবর আজম। আমি যদি শীর্ষে থাকা চার-পাঁচটা ক্রিকেট দলের কথাও বলি, তাহলে সেখানে বাবর আজমের কোনও জায়গা হবে না। অস্ট্রেলিয়া, ইংল্যান্ড কিংবা ভারতের মতো টি-২০ ক্রিকেট দলের প্রথম একাদশে বাবরের জায়গা হবে? একেবারেই নয়।’

এবারের টি-২০ বিশ্বকাপে বাবর আজম একেবারেই ভালো পারফরম্যান্স করতে পারেননি। তাঁর স্ট্রাইক রেট নিয়ে ইতিমধ্যেই যথেষ্ট প্রশ্ন উঠেছে। এছাড়াও তাঁর অধিনায়কত্বকে সমালোচনার কাঠগড়ায় তোলা হয়েছে। দল নির্বাচন নিয়েও অনেকে বাবর আজমের দিকেই অভিযোগের আঙুল তুলেছেন। সম্প্রতি এই ঘটনার সঙ্গে সহমত পোষন করেছেন কামরান আকমল। তবে তিনি কিছুটা নরম সুরে জানিয়েছেন, পাকিস্তান সুপার লিগে এখন যথেষ্ট ভালো পারফরম্যান্স হচ্ছে। পাশাপাশি মেন ইন গ্রিন যথেষ্ট দ্বিপাক্ষিক সিরিজও খেলছে। এর মাধ্যমেই বাবরকে নিজের ব্যাটিং পারফরম্যান্স আগামীদিনে আরও ভালো করতে হবে।

একদিনের ক্রিকেট বিশ্বকাপে খারাপ পারফরম্যান্সের পর বাবর আজম তিনটে ফরম্যাটেই পাকিস্তান ক্রিকেট দলের অধিনায়কত্ব ছেড়ে দিয়েছিলেন। তবে পরবর্তীকালে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের নয়া চেয়ারম্যান আবার তাঁকে অধিনায়ক হওয়ার প্রস্তাব দিয়েছিলেন।

বাবরের আগে শাহিন শাহ আফ্রিদি পাকিস্তান ক্রিকেট দলের অধিনায়ক ছিলেন। তাঁকে অধিনায়কের পদ থেকে সরানোর পর থেকেই যথেষ্ট সমালোচনার ঝড় বইতে শুরু করেছিল।